একদিনের টুর এ সুনামগঞ্জ ভ্রমন এর বিস্তারিত

একদিনের টুর এ সুনামগঞ্জ এ যে সব জায়গা ঘুরে দেখতে পারবেন:
১.যাদুকাটা নদী
২.বারিক্কা টিলা
৩.নীলাদ্রি লেক
৪.লাকমা ছড়া
৫.হাতির গাতা,টাংগুয়ার হাওর
৬.জয়নাল আবেদীন শিমুল বাগান

ভ্রমন প্লান :
ঢাকা থেকে রাত এর বাস এ সুনামগঞ্জ যাবেন অবশ্যই রাত ১০ টা থেকে ১১ টার বাস এ যাওয়ার চেষ্টা করবেন তাহলে সকাল সকাল সুনামগঞ্জ পৌঁছে যাবেন। এই বাস গুলো সকাল ৭ টার ভিতর আপনাকে সুনামগঞ্জ শহর এর বাস স্ট্যান্ড এ নামিয়ে দেবে।ওখানে এ নাস্তা করে অটোতে ব্রিজ এর ওখানে চলে আসবেন ভাড়া ১০ টা জনপ্রতি। ওখান থেকে সারাদিন এর জন্য বাইক রিজার্ভ করে নিবেন। এক বাইকে এ দুই জন বসা যাবে। সারাদিন এর জন্য বাইক এর ভাড়া পড়বে ১১০০-১২০০ টাকার মতো।আমরা সারাদিন ঘুরে ১১০০ টাকা দিয়েছিলাম ।যদিও ১১০০ টাকা ঠিক করে ছিলাম পরে অারোও ১০০ টাকা খুশি হয়ে দিয়ে ছিলাম ওনারা খুব আন্তরিক ভাবে আমাদের জায়গা গুলো ঘুরিয়ে দেখিয়েছেন তাই । আর অবশ্যই দরদাম করে নিবেন আর উপরে যে জায়গা গুলোর নাম লিখেছি সেই জায়গা গুলো ঘুরে দেখাতে হবে বলে বাইক রিজার্ভ করবেন।
বাইক রিজার্ভ নিয়ে প্রথমে আপনি চলে যাবেন যাদুকাটা নদী। ওখান থেকে নদী পার হয়ে বারেক টিলা ঘুরে দেখবেন। বারেক টিলা ঘুরে দেখে চলে যাবেন নীলাদ্রি লেক। ওখান থেকে চলে যাবেন লাকমা ছড়া। লাকমা ছড়া ঘুরে চলে যাবেন হাতির গাতা,টাংগুয়ার হাওর। এখানে কিছু সময় ঘুরে চলে আসবেন নিলাদ্রী লেক অবশ্যই নিলাদ্রী লেক হয়ে আসবেন । আসার সময় নীলাদ্রি লেক থেকে কিছু দূর সামনে এগুলে বাজার পাবেন ওখান এ দুপুরের খাবার খেয়ে নিবেন৷ ওখান দই আর মিষ্টি পাবেন না খেলে মিস করবেন খেয়ে আসবেন অবশ্যই। খাওয়া দাওয়া শেষ করে ওখান থেকে চলে আসবেন শিমুল বাগান। বিকেল টা এখান এ কাটিয়ে চলে আসবেন সুনামগঞ্জ শহর এ।রাত ১০ টা থেকে ১১ টার বাস এ ঢাকা ফিরবেন। সকাল ৬ টা ৭ টার ভিতর ঢাকা থাকবেন ইনশাআল্লাহ।

২০০০ থেকে ২২০০ টাকা ভিতর হয়ে যাবে আপনাদের।
আমাদের সুনামগঞ্জ টুর এর খরচ এর হিসাব
*ঢাকা থেকে যাওয়া আসা বাস ভাড়া ৫৫০×২= ১১০০ টাকা
*বাইক এর ভাড়া ৬০০ জনপ্রতি
*খাওয়া দাওয়া ও অন্যান্য খরচ আরো ৫০০ টাকা।

তবে যদি একটু কম খরচে ঘুরতে চান তাহলে ঢাকা থেকে লোকাল মোটামুটি ভালে মানের বাস এ ও যেতে পারেন ভাড়া ৩০০ থেকে ৪০০ এর মতো।আবার সুনামগঞ্জ এর জায়গা ঘুলো ভেঙে ভেঙে বাইকে ঘুরতে পারেন।এভাবে ঘুরলে এ আপনাদের ১৫০০-১৭০০ টাকার ভিতর হয়ে যাবে।

আর অবশ্যই খেয়াল রাখবেন যেখানেই ঘুরতে যান না কেন দয়া করে বোতল, চিপসের প্যাকেট, সিগারেটের প্যাকেট, চকলেটের প্যাকেট, টিস্যুর প্যাকেট এবং ময়লা-আবর্জনা যেখানে সেখানে ফেলবেন না।আশেপাশেই তাকিয়ে দেখবেন ডাস্টবিন আছে সেখানে ফেলবেন আর না থাকলে সাথে নিয়ে এসে ময়লা ফেলার জায়গায় ফেলবেন।
একটা কথা সব সময় মনে রাখবেন আমাদের দায়িত্ব আমাদের পরিবেশ পরিষ্কার সুন্দর রাখা দুঃখের সাথে বলতে হয় এবার সুনামগঞ্জ এর যেখানেই ঘুরেছি দেখেছি বোতল, চিপসের প্যাকেট,কাগজ এগুলো যেখানে সেখানে ফেলেছে অনেকে এমন যেন আর না হয় দয়া করে আমাদের কাছ খেকে এটা আমরা খেয়াল রাখবো।

Source: Khairul Islam Rana <Travelers of Bangladesh (ToB)

Share:

Leave a Comment

Shares
error: Content is protected !! --vromonkari.com