খাগড়াছড়ি থেকে জলপথে রাঙামাটি

পাহাড়ের দেশ পাবর্ত্য চট্টগ্রাম । বান্দরবান –রাঙ্গামাটি-খাগড়াছড়ি এই তিন জেলা নিয়েই পাবর্ত্য চট্টগ্রাম । খাগড়াছড়ি আর রাঙ্গামাটি লাগোয়া জেলা । পাশাপাশি দুজেলার অবস্থান । ব্যবধান শুধু একদিকে পাহাড় অন্যদিকে কাপ্তাই লেকে বিশাল জলাধার ।  
সড়কপথে যোগাযোগটা পরিচিত হওয়ায় অনেকে এই পথেই খাগড়াছড়ি থেকেই রাঙ্গামাটি যায় । কিন্তু সড়ক যোগাযোগ ছাড়াও ,খাগড়াছড়ি আর রাঙামাটিকে সংযুক্ত করেছে আরও চমৎকার একটা পথ । যারা জলে বেড়াতে পছন্দ করে-তাদের কাছে ভালো লাগবেই ।
এক ট্যুরে দুই জেলা বেড়ানো যাবে । খাগড়াছড়ির সীমান্তবর্তী উপজেলা দিঘীনালা । দিঘীনালা থেকে প্রায় ৪০ কিলোমিটার দূরের পথ লংগদু । দিঘীনালা-লংগদু পথটা পুরোটা পাহাড়ে মোড়ানো । সবুজের পেখম মেলে ধরেছে পাহাড়ী রাস্তা । সবুজ পাহাড়ী গ্রাম ,পাহাড়ের জনবসতি দিয়ে সাজানো এই নির্জন পথ । পথের শেষে দেখা মেলবে রাঙ্গামাটি’র উপজেলা লংগদু । লংগদু থেকে প্রতিদিন লঞ্চ ছেড়ে রাঙ্গামাটির উদ্দেশ্যে । প্রায় ৪ ঘন্টার সময় লাগে এই লঞ্চ যাত্রায় । দীর্ঘ এই সময় আপনি ভেসে বেড়াবেন কাপ্তাই লেকে বিশাল জলাধার জুড়ে । দূরের পাহাড়গুলো ঢেকে থাকবে ঝাপসা আলোয় । লঞ্চ এগুলোই চোখে পড়বে দ্বীপের গ্রাম কাট্টলি বিল । ছোট ছোট দ্বীপ ছড়িয়ে চারপাশে । লেকজুড়ে মাছ ধরার নৌকার অস্থায়ী বসতি । স্বচ্ছ জলে নিজের মুখ দেখে নিতে পারবেন । কাপ্তাই লেকের সৌর্ন্দয্য ধরা দিবে আপনার হাতে ।
পথে পথে বড় বড় পাখির ঝাঁক কিংবা জলের পথ ঠেলে গুলশা খালি,ভাসান্যাদাম,শুভলং বাজার-ঝর্ণা এসব আপনার পথে পড়বে । বড় আয়তনের লঞ্চ হওয়ায় ভ্রমণে কোন বিরক্তি নেই । এযেন শান্ত নদীর হাত ধরে নোঙর করবেন রূপের রানী রাঙামাটিতে । রাঙামাটি’র আশে পাশে ঘুরে রাতের বাসে রওনা হতে পারেন ঢাকার পথে ।  
যেভাবে যাবেন : ১. ঢাকা থেকে সরাসরি খাগড়াছড়ি অাসবেন,খাগড়াছড়ি থেকে জীপ নিয়ে সাজেক যাওয়া যায়
২.সাধারনত সবাই খাগড়াছড়ি হয়ে সাজেক যায় কিন্তু এই রুট ছাড়াও রাঙামাটি থেকেজলপথে সাজেক পৌছানো যায়, এই পথটি তুলনামূলক মজার,যেমন অাপনি রাঙামাটিথেকে লঞ্চে ছড়ে অাসবেন লংগদু বা বাঘাইছড়িতে, লংগদু বা বাঘাইছড়ি থেকে জীপ নিয়ে সাজেক যাওয়া যায়।

Share:

Leave a Comment

Shares
error: Content is protected !! --vromonkari.com