তিস্তা রিভার রাফটিং

বাংলাদেশে যে তিস্তা পানিশূন্যতায় ভুগছে ওপারে সেই তিস্তাই বরফগলা নীল পানির স্রোতে মাতিয়ে রাখছে একদল এডভেঞ্চার প্রেমী মানুষদের। তিস্তার নীল পানির স্রোতে রাফটিং এর প্রতিমূহূর্তেই আপনার জন্য অপেক্ষা করবে থ্রীল আর ভয়। অবশেষে পুরষ্কার হিসেবে পাবেন ভয়কে জয় করার অকৃত্রিম আনন্দ।

রাফটিং করতে চাইলে আপনাকে বাংলাদেশে থেকে যেকোন (বাস/প্লেন/ট্রেন) উপায়ে শিলিগুড়ি পৌছে সেখান থেকে ডিরেক্ট জ্বীপ রিজার্ভ বা শেয়ার জ্বীপে করে চলে যেতে কালিম্পং অথবা দার্জিলিং ঘুরেও চলে যেতে পারেন কালিম্পং। কালিম্পং এর রিভার রাফটিং এর কথা বললেই ড্রাইভার নিয়ে যাবে রাফটিং পয়েন্টে। রাস্তার পাশেই বুকিং কাউন্টার পেয়ে যাবেন। পছন্দ মতো প্যাকেজ নিয়ে নিলে ওদের ড্রাইভার আপনাদের জ্বীপে করে ছেড়ে আসবে রাফটিং এর স্টার্ট পয়েন্টে সেখান থেকে শুরু হবে রাফটিং।

রাফটিং এর দুই ধরনের প্যাকেজ রয়েছে। একটা শর্ট অন্যটা লং। শর্ট রাফটিং 15-20 মিনিট এবং লং রাফটিং 40-50 মিনিট। শর্ট রাফটিং এর জন্য গুনতে হবে 3500 রুপি পার বোট এবং লং রাফটিং এর জন্য 4500 রুপি পার বোট। লং এবং শর্ট দুইধরনের রাফটিংয়েই একেক বোটে 5 জন করে বসা যায় আর সাথে ওদের 2 জন থাকে।

রাফটিং ভিডিও এবং ছবি তোলার জন্য 800-1000 রুপি আলাদা লোক ঠিক করতে হবে। আমাদের 3 বোটের ছবি তোলার জন্য 2000 রুপিতে 3 জন ক্যামেরাম্যান নিয়েছিলাম

Post Copied From:Nahidul Alam Neel>Travelers of Bangladesh (ToB)

Share:

Leave a Comment

Shares
error: Content is protected !! --vromonkari.com