বগালেক কেউক্রাডং ট্যুর

বাংলাদেশের কিছু সর্বোচ্চ উঁচু পাথরের পাহাড়ের মধ্যে কেওক্রাডং বর্তমানে ৪ নম্বর
ছোট করে আমি আমার ভ্রমন কাহিনি লিখছি!
সকাল ৮ টায় খাওয়া দাওয়া সেরে সকাল ৮:৩০ এ স্থানীয় বাস এ করে রুমা বাজার এর উদ্দেশে রওয়ানা হই।। ১২ টার মধ্যে রুমা বাজার পৌঁছালাম । । গাইড ঠিক করে আগে আর্মি ক্যাম্প এর কাজ সেরে দুপুর ১২ টার দিকে রওয়ানা হলাম বগালেক এর উদ্দেশে । । ১৩ জনের গুুপ নিয়ে জিপ করে বগােলেকের উদ্দেশ্যে যাএা। পাহাড়ি উচু নিচু রাস্তা,চারপাশের প্রকৃতি মনোমুগ্ধকর। অবশেষে গাড়ির পথ শেষ বিকেল ৩ টায় এরপর হাটা শুরু ৩০ মিনিট পাহাড়ি পথ বেয়ে পৌছালাম বগালেক। বগালেক এর সৌন্দর্য দেখে সব কষ্ট কোথায় চলে গেল বুঝলাম ই না । আবার আর্মি ক্যাম্প এর কাজ সেরে লেক এ মগ কেটে গোসল টা সবাই ভাল ই উপভোগ করেছিলাম। ( লেকে কিছু accident
হওার কারনে লেকের ঘাঁট থেকে নিচে নামা নিষেধ, সো হাঁটু পানি তে ডুব দাও নয়তো মগ দিয়ে গোসল করো ) কটেজ আগে থেকে বুক করা ছিল । জন প্রতি ভাড়া ১৫০ । অতঃপর খাওয়া দাওয়া সেরে হালকা বিশ্রাম নিয়ে সন্ধ্যার গাইডকে নিয়ে কেওক্রাডং এর প্লান বানালাম সবাই । আড্ডা তহ আছে ই । খাবার এ সবজি
তে জন প্রতি ১০০-১২০ এবং বন মুরগি তে ১৫০
ডে ২; সকাল সকাল হালকা নাস্তা করে আর্মি ক্যাম্প এর কাজ সেরে রওয়ানা হলাম স্বপ্নের কেওক্রাডং এর উদ্ধেশ্যে । রাস্তায় পরবে বেশ কিছু ছোট বড় ঝর্না । লতা ঝর্না, চিংড়ি ঝর্না আর ও আছে নাম না জানা ছোট কিছু ঝর্না । । আনুমানিক ২:৩০ ঘণ্টা হাঁটার পর পৌঁছালাম সেই স্বপ্নের কেওক্রাডং এ । যেহেতু আজই আমাদের রুমা ফেরার প্লেন তাই ৩০ মিনিটে কিছু গ্রুপ ফটো আর বিস্রাম নিয়ে রওয়ানা বগালেক এর দিকে । এবার কষ্ট কিছুটা কম , কারন এখন আপনাকে আপনার নিজের পায়ে ব্রেক লাগাতে হবে শুধু 😀 মানে হল, এখন শুধু পাহাড় থেকে নামার পালা। ২ ঘণ্টায় বগালেক এসে পড়ি । হালকা বিস্রাম নিয়ে গোসল সেরে রওয়ানা হই জিপ এ করে যাত্রা শুরু করি রুমা পর্যন্ত । আর্মি ক্যাম্প এর কাজ সেরে খাওয়া শেষ করে বান্দরবন এর উদ্দেশে রওয়ানা হলাম ৪টায়। ৭টায় পৌঁছেগেলাম বান্দরবন । আহ শান্তি 😀
লক্ষণীয় বিশয়ঃ খুব বেশি জামাকাপড় নেবেন না। পাওয়ার ব্যাংক, ক্যাপ , মুজা , পানির বোতল , দরকারি মেডিসিন , তুলা সাথে রাখবেন। ট্র্যাকিংয়ের সময় কলা খাবেন অনেক , কলা আপনার পেশিকে কর্মক্ষম রাখবে । জোঁক এর জন্য লবন নিবেন সাথে । কোথাও কোন কিছু লিখে জায়গা
নষ্ট করবেননা। পাহাড়ি রা এগুলো পছন্দ করেনা । 

Post Copied from:Hashem Sarwar>Travelers of Bangladesh (ToB)

Share:

Leave a Comment

Shares
error: Content is protected !! --vromonkari.com