রোমান্টিক জুটিরদের জন্য পৃথিবীর সেরা ৮ টি জায়গা

চলুন জেনে নেওয়া যাক জায়গার কথা যেখানে আপনি আপনার ভালোবাসার মানুষকে নিয়ে অনেক সুন্দর এবং রোমান্টিক সময়য় কাটাতে পারবেন।

১. বতসোয়ানায় খোলা আকাশের নিচে স্নান করা

Kent এর এক প্যাকেজে দম্পতিরা উপভোগ করতে পারে এই সুযোগ। দম্পতিরা এই প্যাকেজের আওতায় পাবেন খোলা আকাশের নিচে স্নান করার সুযোগ। একবার চিন্তা করে দেখুন, আপনি আপনার ভালোবাসার মানুষটির সাথে খোলা আকাশের নিচে একসাথে। আর যদি এটি হয় রাতের বেলা আর উপরে তাকালেই যদি  দেখেন হাজার তারা, তাহলে? বেশ রোমান্টিক সময় কাটাতে পারবেন আপনার জীবনসঙ্গীর সঙ্গে।

২. জেমস বন্ডের মত থাকতে চান? চলে যান মোনাকোতে

জীবনে কোন না কোন সময়ে সবার মনেই গুপ্তচর হবার শখ জাগে। যদি সেই স্বপ্নটি আপনার ভালোবাসার মানুষকে সাথে নিয়েই পূরণ হয়, তবে? আপনার এই স্বপ্ন পূরণ করবে, হোটেল মেট্রোপলিটন মন্টে কার্লো। বিশেষ স্যুটের ব্যবস্থা রয়েছে এই হোটেলে। আপনি যদি সেই স্যুট বুক করেন তবে আপনি পাবেন মন্টে কার্লো ক্যাসিনোতে ঘুরার সুযোগ। আপনাকে নিয়ে যাওয়া হবে এস্টন মার্টিনে করে (সাথে বাজবে জেমস বন্ডের মিউজিক)। তারপরই রয়েছে হেলিকপটার ট্যুর। এরপর দুপুরের খাবার। যেখানে শুধু আপনি আর আপনার প্রিয় মানুষ থাকবে। বিকালে রয়েছে আপনার জন্য রোমান্টিক লং ড্রাইভের সুযোগ। তারপর সাথে রয়েছে রুমে বসেই স্পা, ম্যাসাজ করবার সুযোগ। আর রাতে রয়েছে বিশেষ রোমান্টিক রাতের খাবারের ব্যবস্থা।
তাহলে আর দেরী কেন করছেন? এখনই প্ল্যান বানিয়ে ফেলুন জীবনসঙ্গীকে নিয়ে।

৩. পেরুর প্রাচীন অনুষ্ঠানে যোগ দিন

যেসব দম্পতি একান্ত সময়য় কাটাতে চাচ্ছেন তাদের জন্য সবচেয়ে আদর্শ জায়গা হলো পূণ্যভূমি পেরু। সেখানে আপনি পাবেন হোটেল। উপভোগ করতে পারেন রোমান্টিক দুপুরের এবং রাতের খাবারের আয়োজন। সেখানে রান্নার প্রশিক্ষণ নেওয়ারও ব্যবস্থা রয়েছে। দুইজন মিলে একসাথে রান্নাও করতে পারবেন। হোটেলটি ১০০ একর জায়গার উপর নির্মিত।  বিভিন্ন প্রাচীন নিয়ম অনুযায়ী করা হয় পূজা অর্চনা। সেসবে আপনারাও অংশগ্রহণ করতে পারেন।

৪. ইগলুতে সময় যাপন

স্কিইং করতে কার না ভালো লাগে? অবসর সময়য় কাটানোর সুন্দর একটি উপায় হলো স্কিইং করা। আর ইগলু? বই এর পাতায় কিংবা টিভিতে ইগলুর ছবি দেখে কি সেখানে সময় কাটানোর ইচ্ছা জেগেছে কখনও? যদি জেগে থাকে তাহলে আপনি জাপানে একসাথেই স্কিইং এবং ইগলুতে সময় কাটাতে পারবেন। জাপানের আপনার জন্য এই সুযোগ রেখেছেন। সেখানে রয়েছে কৃত্রিম উপায়ে তুষারপাতের ব্যবস্থা। স্কিইং করার পর ইগ্লুতে সময় কাটাতে পারবেন পছন্দের মানুষটির সাথে।

৫. আর্জেন্টিনার ওয়াইন তৈরীর অংশ হতে পারেন

আর্জেন্টিনার তে আপনি এবং আপনার জীবনসঙ্গী মিলে উপভোগ করতে পারেন ওয়াইন তৈরীর সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া। তাদের ওয়াইন তৈরীর সময় হলো ফেব্রুয়ারী থেকে মে। এই সময়ে সেখানে গেলে আপনি পুরো প্রক্রিয়া দেখতে পারবেন। সেখানে তিনরাত থাকলে ওয়াইন তৈরীর প্রক্রিয়ার পাশাপাশি স্বাদ গ্রহণের সুযোগও রয়েছে।

৬. আমাজন নদীতে পিরানহা মাছ ধরতে যাওয়া

আপনি হয়তো বিভিন্ন ক্রুজে যাত্রা করেছেন। কিন্তু আপনার জন্য সম্পূর্ণ ভিন্ন অভিজ্ঞতার সুযোগ করে রেখেছে। পুরো যাত্রা হবে পেরুর আমাজনের মাঝে। যাত্রার মাঝে বিভিন্ন স্পটে থামানো হবে, সেখানে শিকার করা উপভোগ করতে পারবেন। কায়াকিং, জঙ্গলের মাঝে শিকার আর হ্যাঁ, পিরানহা মাছ ধরতেও পারবেন। খুব রোমাঞ্চকর যাত্রা, তাই নয় কি?

৭. জঙ্গলের মাঝে রাত্রি যাপন

আপনি যদি মনে করেন আপনারা খুবই সাহসী দম্পতি তবে এই প্যাকেজটি আপনার জন্য। ধরুন একটি জঙ্গল, যেখানে রয়েছে অনেক হিংস্র প্রাণী। আর এর মাঝে খোলা জায়গায় আপনাদের ঘুমানোর ব্যবস্থা করা হলো। কেমন হবে? ভয় পাবেন নাকি সাহসিকতার পরিচয় দিবেন?
বতসোয়ানার আপনার জন্য এই সুযোগ করে দিবে। আপনাকে সেখানে এমন জায়গায় ঘুমানোর ব্যবস্থা অরে দেয়া হবে যার পাশে রয়েছে অনেক হাতী। খোলা আকাশের নিচে, মাথার উপর অসংখ্য তারা নিয়ে কিং সাইজ বেড। সকালে ঘুম ভাঙবে হাতীদের ডাকে। কেমন মনে হয়? রোমান্টিক নাকি রোমাঞ্চকর?

৮. মালদ্বীপ

পৃথিবীর সবচেয়ে সুন্দর জায়গার একটি হলো মালদ্বীপ। প্রায় অধিকাংশ দম্পতির ইচ্ছা থাকে মালদ্বীপ যাওয়ার। নীল পানি, তার মাঝে আপনার থাকার কটেজ। এরচেয়ে বেশী রোমান্টিক আর কী হতে পারে? আপনার প্রিয়জনকে নিয়ে চলে যেতে পারেন মালদ্বীপে। কাটাতে পারবেন একান্ত কিছু সময়।

Share:

Leave a Comment

Shares
error: Content is protected !! --vromonkari.com