সিলেট এবং পর্যটন স্পট

‪সিলেট শহর থেকে বিভিন্ন পর্যটন স্পটে সহজে এবং কম খরচে যাওয়ায় উপায়ঃ‬

‪#‎সিলেট থেকে জাফলংঃ‬-

★ সিলেট শহর থেকে জাফলং এর দূরত্ব প্রায় ৬০ কি.মি, যেতে সময় লাগবে প্রায় ২ ঘন্টা। পুরো সিলেটের মধ্যে শুধুমাত্র জাফলং যাওয়ায় রাস্তাটাই ভালো। অন্যসব রাস্তা ভয়াবহ রকমের খারাপ। অবশ্য জাফলং রোড তামাবিল পর্যন্ত ভাল, এরপর বলতে গেলে রাস্তাই নাই।‬

‪#‎যেভাবে যাবেনঃ‬

★ সিলেটের কদমতলী বাসস্ট্যান্ড/শিশুপার্ক/সোবহানীঘাট-এই তিনটি জায়গা থেকে জাফলং যাওয়ায় বাস ছাড়ে। ভাড়া ৬০ টাকা।‬

১। দরগাহ গেইট থেকে সোবহানীঘাট রিক্সা ভাড়া ২০ টাকা।‬

২। আম্বরখানা থেকে শিশুপার্ক অটো ভাড়া ৩০-৩৫ টাকা।‬

৩। আম্বরখানা থেকে কদমতলী বাসস্ট্যান্ড রিক্সা ভাড়া ৪০ টাকা।‬

‪#‎জাফলং এ কি কি দেখবেনঃ‬

♦জাফলং জিরো পয়েন্ট‬

♦সেংগ্রামপুঞ্জি ঝর্ণা‬

♦ ইউকেরাম ঝর্ণা‬

♦খাসিয়াপুঞ্জি‬

‪#‎সিলেট থেকে বিছনাকান্দিঃ‬-

★ সিলেট শহর থেকে বিছনাকান্দির দূরত্ব প্রায় ৬০ কি.মি। যেতে সময় লাগবে প্রায় ২.৩০ ঘন্টা। রাস্তা খুবই খারাপ।‬

#যেভাবে যাবেনঃ

সিলেট শহর থেকে প্রথমেই আপনাকে যেতে হবে হাদারপাড় বাজার। হাদারপাড় কয়েকভাবে যাওয়া যায়।‬

১। রিজার্ভ CNGঃ আম্বরখানা থেকে CNG রিজার্ভ নিয়ে হাদারপাড় যেতে পারেন। সেক্ষেত্রে CNG ভাড়া নিবে ৬০০-৭০০ টাকা। এক সিএনজিতে ৫ জন যেতে পারবেন।‬

২। লোকাল CNGঃ আম্বরখানা থেকে লোকালভাবেও হাদারপাড় যেতে পারেন। ভাড়া জনপ্রতি ১৫০ টাকা। আগে ভাড়া ছিল ৭০-৮০ টাকা। কিন্তু রাস্তা খারাপ হওয়াতে এখন ভাড়া বেশি।‬

৩। চূড়ান্ত লোকালঃ‬

প্রথমে সোবহানীঘাট যেতে হবে। সেখান থেকে জাফলং এর বাসে সারিঘাট যেতে হবে (৪৩ কি.মি)। সারিঘাটের ভাড়া ৪৫ টাকা, লেগুনা ভাড়া ৩০ টাকা। যেতে সময় লাগবে ১.৩০ ঘন্টা। এরপর সারিঘাট থেকে যেতে হবে গোয়াইনঘাট (১৬ কি.মি)। CNG ভাড়া ৫০ টাকা, লেগুনা ভাড়া ২৫ টাকা। সময় লাগবে ৪৫ মিনিট। তারপর গোয়াইনঘাট থেকে যেতে হবে হাদারপাড় (১৭ কি.মি)। CNG ভাড়া ৪০ টাকা, সময় লাগবে ১ ঘন্টা।‬

৪। কম লোকালঃ‬

প্রথমে আম্বরখানা/শিশুপার্ক থেকে লোকাল সিএনজিতে করে গোয়াইনঘাট যেতে হবে। ভাড়া ৮০-১০০ টাকা। এরপর গোয়াইনঘাট থেকে লোকাল সিএনজিতে হাদারপাড়। ভাড়া ৪০ টাকা।‬

‪#‎কি কি দেখবেনঃ‬

♦বিছনাকান্দি‬

♦পাংথুমাই ঝর্ণা‬

♦লক্ষণছড়া‬

♦কুলুমছড়া‬

‪#‎হাদারপাড় থেকে বিছনাকান্দি, পাংথুমাই, লক্ষণছড়া, কুলুমছড়া‬

১। হাদারপাড় থেকে রিজার্ভ নৌকা নিয়ে বিছনাকান্দি, পাংথুমাই, লক্ষণছড়া একসাথে ঘুরে আসতে পারেন। নৌকা ভাড়া নিবে ১৫০০-২০০০ টাকা। এক নৌকায় ১০-১২ জন যাওয়া যাবে।‬

২। হাদারপাড় থেকে শুধু পাংথুমাই ও লক্ষণছড়া যেতে চাইলে নৌকা ভাড়া নিবে ১০০০-১২০০ টাকা।‬

৩। হাদারপাড় থেকে শুধু বিছনাকান্দি যেতে চাইলে নৌকা ভাড়া নিবে ৮০০-১০০০ টাকা।‬

‪#‎হাটা পথে বিছনাকান্দিঃ‬

হাদারপাড় বাজার থেকে ৮-১০ মিনিট হেটে গেলে একটি খেয়া পড়বে। খেয়া পাড় হয়ে গ্রামের রাস্তা দিয়ে আরো ৫০ মিনিট হাটলেই বিছনাকান্দি।‬

‪#‎সিলেট থেকে রাতারগুলঃ‬

★ সিলেট শহর থেকে রাতারগুলের দূরত্ব প্রায় ১৯ কি.মি। যেতে সময় লাগবে ১ ঘন্টা।‬

‪#‎কিভাবে যাবেনঃ‬

সিলেট শহর থেকে রাতারগুলে যাওয়ার ৩টি পথ রয়েছে।‬

১) মটরঘাট দিয়ে‬

২) রামনগর চৌমুহনী বাজার দিয়ে‬

৩) চৌরঙ্গী বাজার দিয়ে‬

♦মটরঘাট দিয়ে যাওয়ার উপায়ঃ

১। রিজার্ভঃ আম্বরখানা থেকে মটরঘাট রিজার্ভ CNG ভাড়া ৩০০-৪০০ টাকা।‬

২। লোকালঃ প্রথমে আম্বরখানা থেকে লোকাল সিএনজিতে করে সাহেব বাজার যেতে হবে। ভাড়া ৩০ টাকা, সময় লাগবে ৪৫ মিনিট। এরপর সাহেব বাজার থেকে আবার লোকাল সিএনজিতে করে মটরঘাট যেতে হবে। ভাড়া ২০ টাকা, সময় লাগবে ১৫ মিনিট। মটরঘাট থেকে নৌকা নিয়ে রাতারগুল। নৌকা ভাড়া ৮০০-১২০০ টাকা। এক নৌকায় সর্বোচ্চ ৫ জন যাওয়া যাবে, সেটাও খুব রিস্ক।‬

♦ রামনগর বাজার দিয়ে যাওয়ার উপায়ঃ আম্বরখানা > সাহেব বাজার > রামনগর বাজার > প্রায় ২ কি.মি হেটে রাতারগুল গ্রামের ঘাট > নৌকা নিয়ে রাতারগুল (নৌকা ভাড়া ৫০০ টাকা)।‬

অথবা, আম্বরখানা > হরিপুর > ফতেহপুর > রামমনগর বাজার > রাতারগুল।‬

‪#‎বিঃদ্রঃ‬ পরামর্শ হচ্ছে আপনারা মটরঘাট দিয়ে রাতারগুল যাওয়া পরিত্যাগ  করবেন। মটরঘাটে নৌকার মাঝিরা এখন সিন্ডিকেটের খপ্পরে। শুনলাম ১০ লক্ষ টাকায় এই ঘাটটি ইজারা নেয়া হয়েছে। তাই নৌকার মাঝিরা রাতারগুল যাওয়ার জন্য আকাশচুম্বী ভাড়া চেয়ে বসে।খোজ নিয়ে জানলাম রামনগর চৌমুহনী ঘাট দিয়ে গেলে নৌকা ভাড়া অনেক কমে পাওয়া যায়।‬

‪#‎সিলেট থেকে লোভাছড়াঃ‬

★লোভাছড়া যেতে হলে প্রথমে যেতে হবে কানাইঘাট উপজেলায়। সিলেট শহর থেকে কানাইঘাটের দূরত্ব প্রায় ৬০ কি.মি। যেতে সময় লাগবে ২.৩০ ঘন্টা। সিলেট থেকে দরবস্ত বাজার পর্যন্ত ৪০ কি.মি রাস্তা খুব ভাল। দরবস্ত বাজার থেকে কানাইঘাট পর্যন্ত বাকি ২০ কি.মি রাস্তা খুব খারাপ।‬

#কিভাবে যাবেনঃ

★সিলেটের কদমতলী বাসস্ট্যান্ড থেকে বাসে করে কানাইঘাট যাওয়া যায়। ভাড়া ৬০ টাকা।‬

অথবা,‬

সিলেট শহর থেকে লেগুনাতে করে দরবস্ত বাজার। ভাড়া ৩০ টাকা। দরবস্ত বাজার থেকে কানাইঘাট বাস ভাড়া ২০ টাকা, লেগুনা ভাড়া ৩০ টাকা এবং সিএনজি ভাড়া ৫০ টাকা।‬

‪#‎কানাইঘাট থেকে লোভাছড়াঃ‬

১। রিজার্ভঃ কানাইঘাট থেকে লোভাছড়া ঘুরে আসতে নৌকা ভাড়া নিবে ১০০০-১২০০ টাকা। এক নৌকায় ১০-১২ জন যাওয়া যাবে।‬

২। লোকালঃ লোকাল নৌকায় গেলে জনপ্রতি ভাড়া নিবে ৩০ টাকা।‬

#কি কি দেখবেনঃ

♦লোভাছড়া চা বাগান‬

♦ঝুলন্ত ব্রীজ‬

♦লোভা নদীতে পাথর উত্তোলন‬

‪#‎সিলেট থেকে ভোলাগঞ্জঃ‬

★ সিলেট শহর থেকে ৩৩ কিলোমিটার দূরে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় ভারতের চেরাপুঞ্জি সীমান্তবর্তী বাংলাদেশের বৃহত্তম পাথর কোয়ারি ভোলাগঞ্জ। সিলেটের সবচেয়ে বাজে রাস্তা হচ্ছে এই ভোলাগঞ্জের রাস্তা।‬

#কিভাবে যাবেনঃ

আম্বরখানার মজুমদাড়ি থেকে সিএনজিতে করে ভোলাগঞ্জ যাওয়া যায়। ভাড়া ২০০ টাকা। যেতে সময় লাগবে ২.৩০ ঘন্টা। আর রাস্তায় জ্যাম থাকলে সময় লাগবে আনলিমিটেড।‬

#কি কি দেখবেনঃ

♦দেশের সর্ববৃহৎ পাথর কোয়ারি

Share:

Leave a Comment

Shares
error: Content is protected !! --vromonkari.com