ঘুরে আসুন ভোলার মঙ্গলশিকদার (লালমোহন)

কিভাবে আসবেন:

প্রতিদিন ঢাকা থেকে সন্ধ্যা ৬ টায় লালমোহন এর লঞ্চ ছাড়ে।আপনি লালমোহন এসে পৌছবেন পরদিন সকাল ৫/৬টায়।
লালমোহন থেকে ছাড়ে বিকাল ৪টায়।
ভাড়াঃ সিঙ্গেল কেবিন-৮০০
ডাবল কেবিন-১৬০০
লালমোহন থেকে মোটরসাইকেল যোগে গেলেই আপনার ভাল হবে।ভাড়া ১জন ৫০ টাকা যাওয়ার ক্ষেত্রে।

কোথায় থাকবেন:

আপনি ঢাকা থেকে লালমোহন এ আসবেন। থাকবেন লালমোহন সদর এ বিভিন্ন হোটেল আছে এবং ডাকবাংলো ও আছে।

জায়গাটার নাম মঙ্গলশিকদার। এটি লালমোহন (ভোলা) থেকে ৪/৫কিঃ মিঃ দূর।লালমোহন দক্ষিন ভোলার একটি সবুজ প্রাকৃতিক জনপদ যার পূর্বে বিশাল মেঘনা ও পশ্চিমে তেতুলিয়া নদী। এই দুই নদী পারের নৈসর্গিক ও ভয়ংকর সুন্দর জায়গাগুলোই এই এলাকার মূল আকর্ষন তাছাড়া মেঘনার মাঝখানে গড়ে ওঠা দ্বীপ ( চর ) গুলো আপনাকে সুন্দরবনের মত একটি ফিল দিতেই পারে।
এছাড়া চিরাচরিত বাংলার ঐতিহ্যগুলো অনেক আগে থেকেই লালন করে আসছে এই এলাকার মানুষজন। মাছে ভাতে বাঙালী যার অনেকটা যথার্থতা এইখানে পাবেন। আর আধুনিক নাগরিক সব সুযোগ সুবিধা তোহ থাকছেই। সরকারের দৃষ্টি পড়লে বাংলাদেশের অনেক পর্যটন এড়িয়ার চেয়ে এই এলাকাকে আরো সুন্দর করে বাস্তবায়ন সম্ভব।

Share:

Leave a Comment

Shares
error: Content is protected !! --vromonkari.com